রবিবার ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ


কলাপাড়ায় সাজানো ঘটনাকে কেন্দ্র করে থানায় অভিযোগের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

প্রকাশিত : ০৬:১৫ অপরাহ্ণ, ৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ শনিবার 69 বার পঠিত

অনলাইন নিউজ ডেক্স :

মাইনুদ্দিন আল আতিক, বিশেষ প্রতিবেদকঃ কলাপাড়ায় সাজানো ঘটনাকে কেন্দ্র করে থানায় অভিযোগ দায়েরের মাধ্যমে অন্যায়ভাবে হয়রানি করার প্রতিবাদে শনিবার (৫ সেপ্টেম্বর) বেলা ১১ টায় কলাপাড়া সাংবাদিক ফোরাম কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

এসময় লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন চাকামইয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক ও ৩নং ওয়ার্ড আ.লীগের সভাপতি অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক মোঃ আনোয়ার হোসেন।

 

কলাপাড়া সাংবাদিক ফোরাম সভাপতি মাওলানাা আসাদুজ্জামান ইউসুফের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ওই সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মোঃ আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘৪ সেপ্টেম্বর শুক্রবার বেলা ১১ টার সময় উপজেলার ১নং চাকামইয়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের শান্তিপুর গ্রামে আমার আপন চাচাত ভাই আমিনুল ইসলামকে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে মর্মে আমিসহ আমার ভাই আঃ রাজ্জাক হাওলাদার (৫০), আমার অপর চাচাতো ভাই মোঃ খলিলুর রহমান (৩৫) এবং বর্তমান ইউপি সদস্য মোঃ মিজানুর রহমান হাওলাদারসহ ৪ জনকে আসামী করে কলাপাড়া থানায় একটি ভিত্তিহীন অভিযোগ দায়ের করেন। মারামারি ও মামলার কথা উল্লেখ করে বিভিন্ন পত্রপত্রিকা ও অনলাইন নিউজপোর্টালে সাংবাদ প্রকাশিত হয়।’

 

প্রকাশিত সংবাদটি উদ্দেশ্য প্রণোদিত, মিথ্যা ও ভিত্তিহীন দাবি করে তীব্র প্রতিবাদ করে তিনি বলেন, ‘প্রকৃত ঘটনা হল, থানায় অভিযোগ দায়েরকারী বাদী এবং বিবাদী পক্ষের যৌথ মালিকানা জমি নিয়ে দেওয়ানী আদালতে মামলা চলমান আছে। উক্ত বিরোধীয় জমিতে আমাদের সাথে কোনো আলোচনা বা ফয়সালা না করে মোঃ আমিনুল ইসলাম জমি রোপণ করতে গেলে আমার ভাই আঃ রাজ্জাক তাকে মৌখিকভাবে নিষেধ করে। তাতে আমিনুল ইসলাম তাকে নানা রকম অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকলে আমার অপর চাচাতো ভাই মোঃ খলিলুর রহমান বলেন, আপনি মুরব্বীর সাথে এভাবে খারাপ ভাষা ব্যবহার করেন কেন? এতে আমিনুল ইসলাম উত্তেজিত হয়ে তাকে মারতে আসে এবং এ নিয়ে দু’জনের মধ্যে সামান্য ঠেলাঠেলি হয়। যা বর্তমান ইউপি সদস্য মোঃ মিজানুর রহমান স্থানীয়ভাবে ফয়সালা করার চেষ্টা করলে উল্লেখিত আমিনুল ইসলাম স্থানীয় গ্রাম্য সালিশ না মেনে বেট দিয়া নিজের মাথা ফাটিয়ে কলাপাড়া হাসপাতালে ভর্তি হয় এবং আমাদেরকে অন্যায়ভাবে হয়রানি করার উদ্দেশ্যে এ অভিযোগ দায়ের করেন। প্রকৃত পক্ষে এ ধরনের কোনো রক্তপাতের ঘটনা বা মারামারির ঘটনা ঘটে নাই এবং শ্লীলতাহানীর শ্রশ্নই আসে না। অভিযোগে বর্নিত সমস্ত বিবরন অসত্য এবং বানোয়াট।’

 

বিষয়টি সরেজমিনে তদন্ত করে সত্য ঘটনা প্রকাশ করার জন্য তিনি অনুরোধ জানান।

 

এ সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, চাকামইয়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য মোঃ মিজানুর রহমানসহ কলাপাড়া সাংবাদিক ফোরামের সদস্যবৃন্দ।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দর্পণ বাংলা'কে জানাতে ই-মেইল করুন। আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দর্পণ বাংলা'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

বিজ্ঞাপন

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দর্পণ বাংলা | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি | Developed by UNIK BD